আজ : ১০:৫২, ডিসেম্বর ১৮ , ২০১৮, ৪ পৌষ, ১৪২৫
শিরোনাম :

যে কারণে এখনও বিয়ে করেননি সালমান খান


আপডেট:০৭:২৪, ফেব্রুয়ারি ২৪ , ২০১৮
photo

বিনোদন ডেস্ক: বর্তমান সময়ের বলিউডের সবচেয়ে জনপ্রিয় অভিনেতা সালমান খান। বলিউডে এখন তার ছবি মানেই ‘হিট’, বক্স অফিসে কোটি কোটি রুপির ব্যবসা! প্রযোজকরা তাই নির্দ্বিধায় যে কোনো ছবিতে তাকে নিয়ে বাজি ধরতে রাজি।

শুধু পর্দায় নন, পর্দার বাইরেও নানা ঘটনার জন্য আলোচিত তিনি। কিন্তু তারপরও ভক্তদের কাছে সব সময় প্রিয় তিনি। বলিউডের অন্য দুই খানের তুলনায় সালমানের ভক্ত সংখ্যাও একটু বেশিই। কিন্তু ৫২’তে এসেও বিয়ের পথ মাড়াননি খান সাহেব। বলিউডের সবচেয়ে কাঙ্খিত ব্যাচেলর তিনি।

অবশ্য একের পর এক সম্পর্ক ভাঙা-গড়ার খেলায় মেতে বলিউডে বিরল নজিরই গড়েছেন বলিউডের এই সুপারস্টার। কখনও ঐশ্বরিয়া রাই বচ্চন, সংগীতা বিজলানি, কখনও ক্যাটরিনা আবার হালের সোনাক্ষি, ডেইজি, জারিন কিংবা জ্যাকুলিনকে সালমান খানের প্রেমিকার তালিকা দেখা যায়। কিন্তু কারও সঙ্গেই ঘর বাঁধেননি তিনি।

কিন্তু এখনও পর্যন্ত কেনো বিয়ে করেননি সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে তারই খোলাসা করলেন ‘বজরঙ্গি ভাইজান’খ্যাত এই তারকা। যেখানে তিনি বলেন, তার বাবা চিত্রনাট্যকার সেলিম খান মাত্র ১৮০ রুপি দিয়ে বিয়ে করেছিলেন। আর এখনকার দিনে একটি বিয়ের পেছনে লাখ লাখ বা কোটি কোটি রুপি খরচ করে ফেলে মানুষ। আর এই পরিমাণ অর্থ নাকি খরচ করার সামর্থ নেই সালমানের। তাই তিনি এখনও সিঙ্গেল।

বিয়ে না করার জন্য নির্মাতা সুরজ বরজাতিয়াকেও দায়ী করেছেন সালমান খান। তার মতে, ‘হাম আপকে হ্যায় কৌন’ ও ‘হাম সাথ সাথ হ্যায়’ ছবি দুটিতে বিয়ের অনুষ্ঠান বড় করে দেখানোর জন্যই নাকি এখনকার দিনে মানুষ লাখ লাখ ও কোটি কোটি রুপি খরচ করছে।

রেমো ডি’সুজা পরিচালিত ‘রেস থ্রি’ ছবির শুটিং নিয়ে ব্যস্ত রয়েছেন সালমান খান। এতে তার সহশিল্পী হিসেবে রয়েছেন জ্যাকলিন ফার্নান্দেজ, ডেইজি শাহ, ববি দেওলসহ প্রমুখ।



সাম্প্রতিক খবর

নির্বাচনে সহিংসতায় যুক্তরাষ্ট্র উদ্বিগ্ন : মার্কিন রাষ্ট্রদূত

photo ঢাকা সংবাদদাতা: আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সহিংসতার বিষয়ে যুক্তরাষ্ট্র উদ্বিগ্ন বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত আর্ল রবার্ট মিলার। আজ মঙ্গলবার দুপুরে রাজধানীর গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের রাজনৈতিক কার্যালয়ে দলের নেতাদের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ শেষে সাংবাদিকদের একথা জানান তিনি। সেইসঙ্গে তারা নির্বাচনের পরিবেশ ভয়ভীতি ও ত্রাসমুক্ত দেখতে চান বলেও

বিস্তারিত

0 Comments

Add new comment