আজ : ০৬:৪৯, মে ২২ , ২০১৯, ৮ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৬
শিরোনাম :

বিএনপি মামলাবাজ ও হতাশাগ্রস্ত দলে পরিণত হয়েছে: নাসিম


আপডেট:০২:০৯, ফেব্রুয়ারি ১৫ , ২০১৯
photo

ঢাকা প্রতিবেদক: আওয়ামী লীগ সভাপতিমন্ডলীর সদস্য এবং কেন্দ্রীয় ১৪ দলের মুখপাত্র মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে পরাজয়ের পর বিএনপি এখন একটি মামলাবাজ ও হতাশাগ্রস্থ দলে পরিণত হয়েছে।তিনি বলেন, ‘আপনারা নির্বাচনে হারলেন, আন্দোলনেও হারলেন। আপনারা পালালেন, এখন গেছেন কোর্টে। স্বাধীন রাজনীতিতে আপনারা মামলা করতেই পারেন। যেহেতু আপনারা মামলাবাজ দল।’

নাসিম আজ শুক্রবার জাতীয় প্রেস ক্লাবের মাওলানা আকরাম খাঁ হলে ঢাকা মহানগর শাখা বঙ্গবন্ধু একাডেমির উদ্যোগে আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন। ‘চলমান রাজনৈতিক’ বিষয় নিয়ে এই আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়।আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য বলেন, ‘রাজনীতিতে মামলার কোনও স্থান নেই। রাজনীতি হলো মাঠভিত্তিক। মাঠের মানুষের কাছে যাদের গ্রহণযোগ্যতা আছে, তারাই রাজনীতিতে টিকবে। এটাই স্বাভাবিক।’

তিনি বলেন, বিএনপি রাজনীতির মাঠে এখন আর কোনো তল খুঁজে পাচ্ছে না। তাই হতাশ ও মরিয়া হয়ে উঠেছে। একটি হতাশাগ্রস্থ রাজনৈতিক দল হিসেবে দলটি এখন একাদশ নির্বাচন নিয়ে নির্বাচন ট্রাইবুনালের দ্বারস্থ হয়েছে। কিন্তু রাজনীতি হচ্ছে মাঠের বিষয়, আন্দোলনের বিষয়।বঙ্গবন্ধু একাডেমির সহ-সভাপতি মেজর (অব.) শাহেদ সরওয়ারের সভাপতিত্বে সাম্যবাধী দলের সাধারণ সম্পাদক দিলীপ বড়ুয়া, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

মোহাম্মদ নাসিম বলেন, আপনারা মামলাবাজ দলের প্রতিনিধি হন আর যেকোনও দলের প্রতিনিধিই হন না কেন, আপনারা সংসদে আসুন। জনগণের কথা বলুন। হতাশায় থেকে বেড়িয়ে এসে জনগণের মধ্যে ফেরার চেষ্টা করুন।

বিএনপি-জামায়াতকে স্বাধীনতাবিরোধী আখ্যায়িত করে তিনি বলেন, শঙ্কার বিষয় হচ্ছে স্বাধীনতার পক্ষের শক্তি এ দেশে এখনও নিরঙ্কুশ বিজয় অর্জন করতে পারেনি। বিএনপি-জামায়াতের অপশক্তিরা ঘাপটি মেরে আছে, যেকোনো সময় এরা সক্রিয় হয়ে সন্ত্রাসী তান্ডব চালাতে পারে। তাদের প্রতিহত করতে ১৪ দল একতাবদ্ধ হয়ে কাজ করবে।



সাম্প্রতিক খবর

টাওয়ার হ্যামলেটসের ৩৬ জন বাসিন্দা পেলেন বৃটিশ নাগরিকত্ব

photo লন্ডনবিডিনিউজ২৪ : টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিলের রেজিস্টার অফিসের উদ্যোগে আয়োজিত সিটিজেনশীপ অনুষ্ঠানে পরিবার পরিজন ও বন্ধু বান্ধবদের সামনে রাণীর প্রতি আনুগত্য ঘোষনা করে ব্রিটিশ নাগরিকত্ব গ্রহণ করেন ৩৬ জন বাসিন্দা। নাগরিকত্ব গ্রহণের এই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন মেয়র জন বিগস এবং কাউন্সিলের চীফ এক্সিকিউটিভ উইল টাকলি। তাঁরা নতুন বৃটিশ নাগরিকদের বারায় স্বাগত জানান। মেয়র জন বিগস

বিস্তারিত

0 Comments

Add new comment