আজ : ১০:০০, এপ্রিল ২৪ , ২০১৮, ১১ বৈশাখ, ১৪২৫
শিরোনাম :

ভাড়াটেদের জীবনকে ঝুঁকির মুখে ঠেলে দেয়ায় ল্যান্ডলর্ড ও এজেন্টের অর্থদন্ড টাওয়ার


আপডেট:০৩:১০, এপ্রিল ১২ , ২০১৮
photo

লন্ডনবিডিনিউজ২৪ : হ্যামলেটস বারার একজন বাড়ির মালিক এবং এক কোম্পানী ডিরেক্টরকে ভাড়াটেদের জীবনকে ঝুঁকির মধ্যে ঠেলে দেয়ার দায়ে ১৩,৩০০ পাউন্ড জরিমানা করা হয়েছে। বাউন্ডারি এস্টেটের ক্লিফটন হাউজে সাবেক কাউন্সিল ফ্লাটটির মালিক ছিলেন বার্কিং এর মোহাম্মদ নজরুল হক। তিনি তার এই প্রোপার্টিটি 'গ্রান্টিড রেন্ট' এরেঞ্জমেন্টের অধীনে ১১৮ স্টেপনী ওয়েতে অবস্থিত এজেন্ট ওসেন প্রোপার্টি লিমিটেডের মাধ্যমে ভাড়া দেন। এই প্রোপার্টি এজেন্টের একমাত্র ডিরেক্টর হচ্চেছন কামাল হাসান সুমন। ওসেন প্রোপার্টি লিমিটেড ঘরটি প্রতিটি রুম পৃথক পৃথকভাবে ভাড়া দেয়। এতে করে ফ্লাটি পরিবারের বসবাসের পর্যায় থেকে হাউজ অব মাব্বিপল ওকূপ্যাশন (এইমএমও)তে পরিবর্তন হয়। টেমস ম্যাজিষ্ট্রেট কোর্টে গত মার্চ মাসে শুনানির সময় আদালতকে জানানো হয় যে, উভয় ল্যান্ডলর্ডই ভাড়াটেদের কাছ থেকে উল্লেখযোগ্য অর্থ কামালেও তারা কাউন্সিলের পক্ষ থেকে অনুরোধ সত্বেও ল্যান্ডলর্ড লাইসেন্সের জন্য আবেদন করেনি। গত বছরের জুন মাসে কাউন্সিলের এনভায়রনমেন্টাল হেলথ টিম প্রোপার্টিটি পরিদর্শনে গিয়ে দেখতে পায় যে, এটির রক্ষাণাবেক্ষণ মান অনেক খারাপ এবং মারাত“ক অগ্নি ঝুঁকির মধ্যে রয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে অগ্নিরোধক দরোজার স্বল্পতা, অকার্যকর ফায়ার সনাক্তকরণ সিস্টেম, স্মোক এলার্ম বিচ্ছিন্ন থাকা, অগ্নি নিরাপত্তা সংক্রান্ত তথ্যাদির অনুপস্থিতি। কাউন্সিল অফিসাররা আরো দেখতে পান যে, শাওয়ার রুমের পানির লিক ৬ মাস ধরে থাকলেও, তা সারানো হয়নি, যার করণে নীচের তিনটি ফ্লোরের ক্ষতি সাধন হয়েছে। আদালতে অভিযুক্তরা দোষ স্বীকার করে নিলে বিচারক হাউজিং এ্যাক্ট ২০০৪ এর আওতায় তাদেরকে ১৩,৩০০ পাউন্ড প্রদানের নির্দেশ দেন। টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিলের স্ট্র্যাটেজিক ডিরেক্টর টম ম্যাককোর্ট বলেন, এটা মোটেই গ্রহণযোগ্য নয় যে, ল্যান্ডলর্ডদের একমাত্র দায়িত্ব হচ্চেছ ভাড়াটেদের কাছ থেকে উচ্চহারে রেন্ট বা ভাড়া আদায় করা এবং প্রোপার্টিটির ভালো রক্ষণাবেক্ষণ ও ভাড়াটেদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে তাদের আইনী দায় দায়িত্বগুলো উপেক্ষা করা। এই ফ্লাটটি টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিলের লাইসেন্সিং স্কীমের আওতাধীন এলাকায় পড়েছে। কাউন্সিল এইচএমও লাইসেন্সিং স্কীমের আওতা বারার সর্বত্র কার্যকর করার জন্য বর্তমানে কনসালটেশন করছে। আগামী ২৪ মের মধ্যে সকল ল্যান্ডলর্ড, এজেন্ট, ভাড়াটে ও যারা নিজেদের অভিমত জানাতে আগ্রহী, তাদেরকে এই স্কীম সম্পর্কে মতামত দেয়ার জন্য অনুরোধ করা হয়েছে। www.towerhamlets.gov.uk/consultation এই ওয়েবসাইটে গিয়ে ‘হাউজেস/ফ্লাটু ইন মাব্বিপল ওকুপ্যাশন’ লিংক এ গিয়ে মতামত দেয়া যাবে।



সাম্প্রতিক খবর

নাগরিকত্ব নিয়ে দুটি কথা

photo রোমান বখত চৌধুরীঃ আমি কোন লিগ্যাল এক্সপার্ট নই। তারপরও একজন সাধারণ মানুষ হিসেবে সাধারণ জ্ঞানে নাগরিকত্ব নিয়ে যা বুঝি তা পেশ করছি। ভুল হলে মন্তব্যে আপনার মতামত রাখেন। সানন্দে গ্রহণ করবো... পাসপোর্ট হচ্ছে একটি ট্রাভেল ডকুমেন্ট। এটি সাধারণত একজন ব্যক্তি যে দেশে জন্মগ্রহন করেছেন সে দেশ ইস্যু করে। একটি পাসপোর্ট দিয়ে একজন ব্যক্তি কোন দেশের তা চিহ্নিত করা যায়। পাসপোর্ট মূলত আন্তর্জাতিক

বিস্তারিত

0 Comments

Add new comment