আজ : ০৩:৪৩, জুলাই ১৩ , ২০২০, ২৮ আষাঢ়, ১৪২৭
শিরোনাম :

উদোর পিণ্ডি বুধোর ঘাড়ে চাপাতে তাসবিরুলকে গ্রেফতার: রিজভী


আপডেট:১০:৩৬, মার্চ ৩১ , ২০১৯
photo

ঢাকা প্রতিবেদক: উদোর পিণ্ডি বুধোর ঘাড়ে চাপাতেই এফআর টাওয়ারে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় বিএনপি নেতা তাসবিরুল ইসলামকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন রুহুল কবির রিজভী।

রোববার (৩১ মার্চ) সকালে নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের নিচে আয়োজিত এক আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলে রিজভী এ অভিযোগ করেন। সদ্যপ্রয়াত জাতীয়তাবাদী ওলামা দলের সভাপতি হাফেজ মাওলানা আব্দুল মালেক এবং বিএনপির সাবেক সংসদ সদস্য প্রয়াত মোয়াজ্জেম হোসেনের রুহের মাগফেরাত কামনায় এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

রিজভী বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী এখন কৌশল নিয়েছেন— যা কিছু ঘটবে, বিএনপির ওপর চাপাও। তাসবিরুল ইসলাম কুড়িগ্রাম বিএনপির সভাপতি, এটা সত্য কথা। বিএনপির জাতীয় নির্বাহী কমিটির সদস্যও তিনি। কিন্তু ওই বিল্ডিংয়ের সঙ্গে তাসবিরুল ইসলামের সম্পর্ক কী? ওইটার তো তিনি জমির মালিক নন, সে তো ডেভেলপার নন, তাকে গ্রেফতার করলেন কেন? গ্রেফতার করেছেন এই কারণেই যে, জনগণ দেখানো যা কিছু হয়, যা কিছু ঘটে, তার সঙ্গে বিএনপি জড়িত।’

‘উনি তো তিনটি ফ্ল্যাট কিনেছেন রূপায়নের কাছ থেকে। রূপায়নের মালিক কে? রূপায়নের মালিক সরকার সমর্থিত। তাছাড়া তাসবিরুল যখন ফ্ল্যাট কিনেছেন, তখন বিল্ডিং হয়ে গেছে। অথচ তাসবিরুল দায়ী হয়ে গেলেন, তিনি গ্রেফতার হয়ে গেলেন। আর সরকারের সঙ্গে জড়িত এফআর টাওয়ারের ডেভেলপার, মালিক নির্বিগ্নে ঘুরে বেড়াচ্ছে’—বলেন রিজভী।

তিনি বলেন, ‘বনানীতে আরেক অভিজাত হোটেলের যত তলা হওয়ার কথা ছিল এই সরকার আসার পার সেখান আরও পাঁচ/ছয় তলা বাড়ানো হয়েছে। ইকবাল টাওয়ারের কথা বলতে চাই না। তার বিল্ডিংকোড কত? ওইখানে উনি হাত দেবেন না, কারণ ওইটার মালিক তো ক্ষমতাসীন দলের সঙ্গে জড়িত। আজকে উদোর পিণ্ডি বুধোর ঘাড়ে চাপানোর জন্য তাসবিরুল ইসলামকে গ্রেফতার করা হয়েছে।’

সরকার ফায়ার সার্ভিস উন্নত করেনি অভিযোগ করে রিজভী বলেন, ‘আজকে তরুণ-তরুণীরা ঝলসে যাচ্ছে, পোড়া মানুষের মাংসের গন্ধে ঢাকার বাতাস ভারি হয়ে উঠছে। কিন্তু সরকার নির্বিকার। প্রধানমন্ত্রী তার অফিস থেকে নাকি মনিটরিং করছেন আগুন কীভাবে লেগেছে। উনি কী মনিটরিং করছেন? হেলিকপ্টার করে বালতি ভরে পানি নেওয়া হচ্ছে হাতিরঝিল লেক থেকে। সেই তলা ফুটো বালতির পানি বনানী যাওয়ার আগেই শেষ! এই হচ্ছে প্রধানমন্ত্রীর মনিটরিং।’

‘প্রধানমন্ত্রী মনিটরিং করছেন আর একটা ট্রাজেডির পর আরেকটি ট্রাজেডি, একটা মর্মান্তিক দুর্ঘটনার পর আরেকটা দুর্ঘটনা, একটা শোক ভুলতে না ভুলতেই আরেকটা শোক। মারা যাচ্ছে তরুণ-তরুণী, বৃদ্ধা-বৃদ্ধা, শিশু’— বলেন রুহুল কবির রিজভী।

প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশে বিএনপির এ নেতা বলেন, ‘বাকশাল করবেন? বাকশাল এই জন্যই করবেন যাতে এই পোড়া মাংসের প্রতিবাদ আকাশে আকাশে ধ্বনিত না হয়। কারণ, বাকশাল মানেই তো কণ্ঠরোধ, বাকশাল মানেই তো প্রতিবাদ না করা।’

ওলামা দলের সাধারণ সম্পাদক শাহ নেছারুল হকের সভাপতিত্বে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শামসুজ্জামান দুদু, চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আবদুস সালাম, যুগ্ম মহাসচিব সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, খায়রুল কবির খোকন, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুস সালাম আজাদসহ অন্যরা।



সাম্প্রতিক খবর

প্রতিদান চেয়না

photo প্রতিদান চেয়না শিহাবুজ্জামান কামাল: শিশু ভুমিষ্ট হওয়ার পর অজানা আতংকে চিৎকার করে কাঁদে। তখন একমাত্র গর্ভধারিণী মা অভয় দিয়ে তাকে বূকে জড়িয়ে ধরেন। সন্তানকে পরম আদর যতনে মানুষ করেন। কিন্তু কি জানো! একদিন সেই সন্তানই তাকে ভুলে যায়। আর এই পৃথিবীতে ভুলে যাওয়া মানুষের সংখ্যাই বেশি। জীবনে চলার পথে হাজার মানুষের সাথে পরিচয় হবে।প্রয়োজনে তারা পাশে আসবে। তোমাকে ভালোবাসবে। কিন্তু

বিস্তারিত

0 Comments

Add new comment