আজ : ০৮:২৪, জানুয়ারি ২৫ , ২০২০, ১২ মাঘ, ১৪২৬
শিরোনাম :

কার ফ্রি ডে উপলক্ষে ইস্ট লন্ডনের রোমান রোডে যান চলাচল বন্ধ থাকবে ২২ সেপ্টেম্বর


আপডেট:০৯:২২, সেপ্টেম্বর ১৮ , ২০১৯
photo

লন্ডনবিডিনিউজ২৪ : টাওয়ার হ্যামলেটস বরার বো এলাকার রোমান রোডকে ২২ সেপ্টেম্বর কার ফ্রি বা যান চলাচল মুক্ত ঘোষনা করা হয়েছে। ঐদিন জনসাধারণ এই রাস্তাকে তাদের খেলা ও আড্ডার স্থান হিসেবে ব্যবহার করবেন।

লন্ডন কার ফ্রি ডে বা যানমুক্ত দিবস কর্মসূচির অংশ হিসেবে রোমান রোডে আগামী ২২ সেপ্টেম্বর রোববার গাড়ি চলাচল বন্ধ থাকবে। সারা বিশ্বের অধিকাংশ রাজধানীর বিভিন্ন রাস্তাকে ঐদিন কার ফ্রি রাখার বৈশ্বিক কর্মসূচির অংশ হিসেবে গোটা লন্ডনের ২০ কিলোমিটার (১২.৪ মাইল) রাস্তায় যন্ত্রচালিত যান চলাচল বন্ধ রাখা হবে।

এ প্রসঙ্গে টাওয়ার হ্যামলেটসের মেয়র জন বিগস বলেন, কমিউনিটিগুলোকে একত্রিত করার এবং আমাদের রাস্তাগুলোর পরিবেশ পারিপার্শ্বিকতাকে উপভোগ্য করার এক অনন্য সুযোগ হচ্ছে কার ফ্রি ডে। বায়ুর মান বাড়ানো এবং রাস্তাগুলোকে আরো প্রানোচ্ছল করে তোলা অন্যতম দু'টি চ্যালেঞ্জ, যা মোকাবেলায় আমরা বিভিন্ন প্রকল্প গ্রহণ করেছি। যানজট এবং সড়ক নিরাপত্তা বাসিন্দাদের কাছে সত্যিকারের উৎকণ্ঠার বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে। তাই, ট্রাফিক ফ্রি স্ট্রিট বা যানমুক্ত রাস্তাগুলো কেমন হয়, তা উপলব্দি করার সুযোগ করে দিবে এই কার ফ্রি দিবস।

কাউন্সিল বো এলাকার রোমান রোডের ৪০০ গজ দীর্ঘ এলাকায় সকাল ১০টা থেকে বিকাল ৮টা পর্যন্ত যান চলাচল বন্ধ রাখবে। এসময় ঐ রাস্তায় আয়োজন করা হবে ক্রেজি গলফ, হিউম্যান টেবিল ফুটবল, জেনগা, কানেক্ট ফোর, দাবা ইত্যাদি খেলার সুবিধাদি, যা বাসিন্দারা বিনামূল্যে উপভোগ করতে পারবেন। এছাড়া সাইকেলিং টেস্টার সেশন পরিচালনা করবে বাইকওয়ার্কস এবং বিনামূল্যে বাইসাইকেল মেরামত করে দেবে ডক্টর বাইক।

পরিবেশ বিষয়ক কেবিনেট মেম্বার, কাউন্সিলর ডেভিড এডগার বলেন, টাওয়ার হ্যামলেটসে পায়ে হেঁটে ও সাইকেলে চলাচলের অভিজ্ঞতাকে আরো উন্নত করতে আমরা আগ্রহী। বরার ১৭টি নেইবারহুডকে দেখার ও অনুভব করার বিষয়কে উন্নত করতে এবং বরায় টেকসই চলাচলকে আরো সহজ, নিরাপদ ও অধিকতর স্বাচ্ছন্দ্যময় করে তুলতে মেয়রের লিভেবল স্ট্রিটস প্রোগ্রাম গ্রহণ করা হয়েছে।



সাম্প্রতিক খবর

বৃটেনে ইমিগ্রশন আইন শিথিল

photo লন্ডনবিডিনিউজ২৪ : বিদেশি কর্মী নিয়োগের ক্ষেত্রে বছরে ৩০ হাজার পাউন্ড বেতন দেওয়ার যে শর্ত রয়েছে, সেটি বাদ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে যুক্তরাজ্য সরকার। গতকাল মঙ্গলবার মন্ত্রিসভার বৈঠকে ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন এ সিদ্ধান্তের কথা জানান। বরিস জনসন বলেন, ব্রেক্সিট পরবর্তী সময়ের জন্য সরকার যে অভিবাসন নীতি প্রণয়ন করতে যাচ্ছে, আয়ের ওই শর্ত তার সঙ্গে সংগতিপূর্ণ নয়।

বিস্তারিত

0 Comments

Add new comment